তারিখ : ১৮ নভেম্বর ২০১৯, সোমবার

সংবাদ শিরোনাম

বিস্তারিত বিষয়

নান্দাইলে জলা বিলে হাইত উৎসবে মাছ শিকারীদের ঢল

নান্দাইলে জলা বিলে হাইত উৎসবে মাছ শিকারীদের ঢল
[ভালুকা ডট কম : ১৮ অক্টোবর]
‘মাছে ভাতে বাঙালি' এই কথাটি বাংলাদেশের মানুষের ঐতিহ্যস্বরূপ। বাংলা বৎসরের কার্তিক-অগ্রায়ন মাসে অর্থাৎ শীত আগমনী বার্তার পূর্ব মহুর্ত হেমন্তকালই মাছ ধরার মৌসুম বা হাইত উৎসব। সে সময় বিল বা জলাশয়ে হাটু পরিমাণ পানি থাকায় মাছ ধরতে সহজ। ঠিক এই সময়ে ময়মনসিংহের নান্দাইল উপজেলার চন্ডীপাশা ইউনিয়নের জলা বিল এলাকার মানুষেরা বছরে একবার মেতে ওঠে মাছ ধরার আনন্দে।

বৃহস্পতিবার হাইত উৎসবে মেতে উঠে ছিলেন বিলপাড় এলাকার মানুষ সহ বিভিন্ন দূর-দূরান্ত থেকে আসা আত্মায়-স্বজন ও প্রতিবেশী। ফজরের নামাজ পরপরই হৈ হুল্লুড় করে টাক জাল, ঠেলা জাল ও পলো নামক বাশঁ দিয়ে তৈরী এক ধরনে খাচাঁ জাল সহ বিভিন্ন ধরনের জাল নিয়ে মাছ ধরতে নেমে পড়ে বিলে। হাইত এর দিন নির্ধারন করে হাটবাজারে ঢাক-ঢোল বা মাইকিং করে আগেই জানিয়ে দেওয়া হয়। যার ফলে আগের দিনেই বিভিন্ন স্থান থেকে মাছ শিকারীরা চলে আসে বিলপাড়ার এলাকার আত্মীয় স্বজনদের বাড়িতে। তবে হাইতে বড় ধরনের কোন মাছ না পেলেও কমতি নেই কোন আনন্দের।প্রথমে সবাই একযোগে মাছ ধরার অস্ত্র নিয়ে হাইতে নেমে সারিবদ্ধ হয়ে এগিয়ে যায় বিলের একপ্রান্ত থেকে অন্যপ্রান্তে। পরে পানি ঘোলাটে হলে মাছ ধরা পড়ে সহজেই। ছোট-বড় নানা প্রজাতির বিভিন্ন ধরনের মাছ। তখন বিল পাড় থেকে সেই উৎসব উপভোগ করে শিশু-কিশোর থেকে বিভিন্ন বয়সের বিভিন্ন পেশাজীবির মানুষ।

পাঁচ কিলোমিটার দূরের আচারগাঁও ইউনিয়ন থেকে আসা মোহাম্মদ দুলাল মিয়া (৩৫) বলেন, গত বুধবার রাতেই পলো নিয়ে তিনি জলা বিলপারে বোনের বাড়িতে এসেছেন। গতকাল সারা দিন মাছ ধরেছেন। তেমন বড় কোনো মাছ পাননি। তবে আত্মীয়-বন্ধুদের সঙ্গে আনন্দের কমতি হয়নি বলে জানান তিনি।

চন্ডীপাশা ইউপি চেয়ারম্যান এমদাদুল হক ভুইয়া বলেন, এখন বিলগুলোতে আর আগের মতো মাছ নেই। তার কারন বড় খাল বা নদীতে বাধ দিয়ে বড় জাল দিয়ে মাছ ধরায় বিলগুলোতে তেমন মাছ পাওয়া যায় না। তাই হাইত আগের মতো জমেও না। তবু হাইত আয়োজনের খবর পেলে দূর-দূরান্ত থেকে দলে দলে মাছ শিকারিরা আগের দিনই বিলপাড়জড়ো হয়। হাইতে মাছ যত ধরা পড়া বা না পড়ুক, তার চেয়ে বেশি হয় আনন্দ-উল্লাস।#





সতর্কীকরণ

সতর্কীকরণ : কলাম বিভাগটি ব্যাক্তির স্বাধীন মত প্রকাশের জন্য,আমরা বিশ্বাস করি ব্যাক্তির কথা বলার পূর্ণ স্বাধীনতায় তাই কলাম বিভাগের লিখা সমূহ এবং যে কোন প্রকারের মন্তব্যর জন্য ভালুকা ডট কম কর্তৃপক্ষ দায়ী নয় । প্রত্যেক ব্যাক্তি তার নিজ দ্বায়ীত্বে তার মন্তব্য বা লিখা প্রকাশের জন্য কর্তৃপক্ষ কে দিচ্ছেন ।

কমেন্ট

জীবন যাত্রা বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

অনলাইন জরিপ

  • ভালুকা ডট কম এর নতুন কাজ আপনার কাছে ভাল লাগছে ?
    ভোট দিয়েছেন ১২২২ জন
    হ্যাঁ
    না
    মন্তব্য নেই