তারিখ : ১৭ আগস্ট ২০১৮, শুক্রবার

সংবাদ শিরোনাম

বিস্তারিত বিষয়

ভালুকায় স্কুলের ভবনের নাম করণ নিয়ে বিভ্রান্তি

ভালুকায় স্কুলের ভবনের নাম করণ নিয়ে বিভ্রান্তিঃ ইঙ্গিত আ’লীগ ও বিএনপির নেতার দিকে
[ভালুকা ডট কম : ১৬ মে]
ভালুকা উপজেলার আঙ্গারগাড়া ইউনাইটেড উচ্চ বিদ্যালয়ের ব্যক্তিগত ব্যয়ে নির্মিত একটি ৩তলা ভবনের নাম করণ নিয়ে উপজেলা নির্বাহী অফিসার বরাবর একটি অভিযোগ দায়ের করেছেন স্থানীয় জনৈক বেনামী ব্যক্তি। সেই অভিযোগ কারীর নাম ঠিকানা সঠিক নয়। স্থানীয়দের অভিযোগ স্কুল ভবনের নাম করণের নিয়ে বিভ্রান্তি ছড়াচ্ছে স্থানীয় এক আ’লীগের নেতা ও বিএনপির এক নেতা এ অভিযোগ দিয়েছেন এমনটিই ইঙ্গিত করেছেন স্কুল কর্তৃপক্ষ ও স্থানীয় আ’লীগ নেতারা।

সূত্রে জানাযায়,আঙ্গারগাড়া ইউনইটেড উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে একটি টিন সেট ঘর ছিল। সে ঘরটি ভেঙ্গে একটি নতুন ভবন নির্মাণের জন্য স্কুলের ম্যানিজিং কমিটির সভায় গত ২৫/১১/২০১৫ইং তারিখ সিদ্ধান্ত হয়। ওই তিন তলা ভবন নির্মাণের সব ধরণের ব্যয় বহন করবেন স্কুল কমিটির সভাপতি ওই স্কুলের প্রাক্তন ছাত্র আলহাজ্ব এম,এ ওয়াহেদ। স্কুল ম্যানেজিং কমিটির গত ২০/০৪/২০১৬ইং সভায় সিদ্ধান্ত হয় তিন তলা ভবনটির ভিত্তি প্রস্থর স্থাপন করবেন বর্তমান উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান গোলাম মোস্তফা। ওই সিদ্ধান্ত মোতাবেক গত ০১/০৯/২০১৬ইং তারিখ উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান গোলাম মোস্তফা ‘আলহাজ্ব এম,এ ওয়াহেদ ভবন’টির ভিত্তি প্রস্থর স্থাপন করেন। এ সময় উপস্থিত ছিলেন,উপজেলা পরিষদের সাবেক ভাইস চেয়ারম্যান মজিবুর রহমান,ডাকাতিয়া ইউপি চেয়ারম্যান আ’লীগ নেতা সাইফুল ইসলাম,রাজৈ ইউপি আ’লীগ নেতা নুরুল ইসলাম বাদশাহ,স্কুলের প্রধান শিক্ষক আতিকুজ্জামান লস্কর, ডাকাতিয়া ইউনিয়ন আ’লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি আশরাফ উদ্দিন আহাম্মেদ,ইউনিয়ন আ’লীগের সাধারণ সম্পাদক শামছুল হক, বাটাজোর সোনার বাংলা ডিগ্রি কলেজের অধ্যাপক আতাউর রহমান কামাল,ইউনিয়ন যুবলীগের সাবেক সভাপতি আনিছুর রহমান,পাঁচগাও সান রাইজ উচ্চ বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আব্দুল মতিন সহ স্কুল কমিটির সদস্য ও স্থানীয় আ’লীগের নেতৃবৃন্দ।

আলহাজ্ব এম,এ ওয়াহেদের ব্যক্তিগত তহবিল থেকে ৫৫লাখ টাকা ব্যয়ে ৩তলা ভবনটি নির্মাণ করার পর স্কুল কমিটির গত ০৩/০৩/২০১৭ইং তারিখ সিদ্ধান্ত নেয় স্থানীয় এমপিকে দিয়ে এ ভবনটি উদ্বোধন করানো জন্য। গত ১৭/০৮/২০১৭ইং তারিখ  ভবনটি উদ্বোধন করেন স্থানীয় এম,পি অধ্যাপক ডা.এম আমান উল্লাহ। এসময় উপস্থিত ছিলেন,সাবেক উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান জুলহাস উদ্দিন তালুকদার,ভালুকা পৌর আ’লীগের সভাপতি জালাল উদ্দিন পাঠান, স্কুলের প্রধান শিক্ষক আতিকুজ্জামান লস্কর, ইউনিয়ন আ’লীগ নেতা আবুল কালাম আজাদ লেভু, মুক্তিযোদ্ধ সন্তান কমান্ডার ভালুকা উপজেলার আহবায়ক সাদেকুর রহমান তালুকদার, মুক্তিযোদ্ধা  ফজলুল হক তালুকদার,ভালুকা ডিগ্রি কলেজের প্রভাষক ও ঘাতক দালাল নির্মূল কমিটি ভালুকা উপজেলা শাখার সদস্য সচিব আফতাব উদ্দিন আহাম্মেদ, ভালুকার প্রবীন সাংবাদিক দৈনিক কালের কন্ঠের ভালুকা প্রতিনিধি মোখলেছুর রহমান মনির, যুবলীগ নেতা আনিছুর রহমান,আতাউর রহমান কামালসহ স্থানীয় আ’লীগের নেতৃবৃন্দ।

স্কুলের ম্যানেজিং কমিটির ৪টি সভা অনুষ্ঠিত হয় ওই কমিটিতে অধিকাংশ সদস্যই আ’লীগের। সভায় ৪টি কোন দিন প্রস্তাবও করা হয়নি বঙ্গবন্ধুর নামে ওই ভবনটি নির্মাণ করা হবে। স্কুলের সভাপতি এম,এ ওয়াহেদ তাঁর ব্যক্তিগত টাকা ব্যয় করে স্কুল ভবনটি নির্মাণ করে দিয়েছে। তিনি নিজেই ভিত্তি প্রস্থর ও উদ্বোধন করতে পারতেন। তিনি তা না করে ভিত্তি প্রস্থর করালেন উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ও উদ্বোধন করালেন স্থানীয় সংসদ সদস্যকে দিয়ে। ভিত্তি প্রস্থর স্থাপনের নাম ফলকে সুষ্পষ্টই উল্লেখ ছিলো আলহাজ্ব এম,এ ওয়াহেদ ভবন। ওই সময় স্কুল কমিটির সদস্য,স্থানীয় আ’লীগের নেতা কর্মী ও গণ্যমাণ্য ব্যক্তিবর্গ উপস্থিত ছিলেন। তাঁরা ভবনের নাম করনে ক্ষেত্রে কেউ কোন প্রকার আপত্তি অথবা প্রতিবাদ করেনি। ১১মাস পর স্থানীয় এম,পি অধ্যাপক ডা.এম আমান উল্লাহ ভবনটি উদ্বোধন করার সময়ও কেউ ভবনের নাম করণ নিয়ে কোন প্রকার আপত্তি করেন নি।  হুট করে বীর মুক্তিযোদ্ধা,আলহাজ্ব বিল্লাল হোসেন সাং আঙ্গারগাড়া বেনাম ব্যবহার করে উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান ও উপজেলা নির্বাহী অফিসার বরাবর একটি অভিযোগ দেয়া হয় ‘বঙ্গবন্ধুর ভবন নাম পরিবর্তন আলহাজ্ব এম,এ ওয়াহেদ ভবন’ করা হয়েছে।

ওই অভিযোগ পত্র হাতে পাওয়ার পর মোঃ বিল্লাল হোসেন উপজেলা নির্বাহী অফিসার বারবর একটি পাল্টা অভিযোগ পত্র দাখিল করেন। তিনি অভিযোগ পত্রে উল্লেখ করেন আমি বীর মুক্তিযোদ্ধা এবং আলহাজ্ব নৈই। কে বা কারা আমার নাম ব্যবহার করে একটি মিথ্যা অভিযোগ পত্র দাখিল করেছেন। আমি এ ঘটনার প্রতিকার চাই।

স্কুল কমিটির সদস্য ও স্থানীয় সাধারণ মানুষের সাথে কথা বলে জানাযায়, ওই ইউনিয়নের প্রভাবশালী বিএনপি নেতা ও অপর এক আ’লীগ নেতার কারসাজিতে ষড়যন্ত্র করে প্রতিষ্ঠানটির প্রধান শিক্ষককে বেকায়দায় ফেলার জন্য, প্রতিষ্ঠানটির মান ক্ষুন্ন করার জন্য ও আ’লীগের মনোনয়ন প্রত্যাশী এম,এ ওয়াহেদের মনোনয়ন প্রাপ্তিতে ব্যাঘাত ঘটনানো জন্যই এ ধরনের বিভ্রান্তি মূলক অভিযোগটি দায়ের করা হয়েছে।#






সতর্কীকরণ

সতর্কীকরণ : কলাম বিভাগটি ব্যাক্তির স্বাধীন মত প্রকাশের জন্য,আমরা বিশ্বাস করি ব্যাক্তির কথা বলার পূর্ণ স্বাধীনতায় তাই কলাম বিভাগের লিখা সমূহ এবং যে কোন প্রকারের মন্তব্যর জন্য ভালুকা ডট কম কর্তৃপক্ষ দায়ী নয় । প্রত্যেক ব্যাক্তি তার নিজ দ্বায়ীত্বে তার মন্তব্য বা লিখা প্রকাশের জন্য কর্তৃপক্ষ কে দিচ্ছেন ।

কমেন্ট

ভালুকা বিভাগের অন্যান্য সংবাদ

সর্বশেষ সংবাদ

অনলাইন জরিপ

  • ভালুকা ডট কম এর নতুন কাজ আপনার কাছে ভাল লাগছে ?
    ভোট দিয়েছেন ৫২৪ জন
    হ্যাঁ
    না
    মন্তব্য নেই